ঝালকাঠিতে রাজনৈতিক ক্ষমতার অন্তরালে ইউনিয়ন পরিষদ ভবনে চেয়ারম্যানের টর্চার সেলে নির্যাতনের অভিযোগ

ঝালকাঠি প্রতিনিধি:
ঝালকাঠিতে রাজনৈতিক ক্ষমতার অন্তরালে সদর উপজেলাধীন ১নং গাভারামচন্দ্রপুর ইউনিয়ন পরিষদ ভবনে ইউপি চেয়ারম্যান মাছুম শেরোয়ানী টর্চার সেল।

এ বিষয় ইউপি চেয়ারম্যানের টর্চার সেলে চেয়ারম্যান মাছুম শেরোয়ানীর নির্যাতনের শিকার বিনয়কাঠি ইউনিয়নস্থ উত্তর এশিয়ার গ্রামের জুয়েল আকন জানান, কয়েক দিন আগে আমার স্ত্রীর সাথে পারিবারিক বিরোধ হওয়ায় সে গাভারামচন্দ্রপুর ইউনিয়নস্থ বালিঘোনা গ্রামে তার বাবার বাড়ী গিয়ে আমার বিরুদ্ধে ও মিমাংশা তাদের ইউনিয়ন পরিষদে অভিযোগ করে। উক্ত অভিযোগের ভিত্তিতে গত ১৭ ডিসেম্বর সকালে আমি আমার বাবা ও আমাদের ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য আনোয়ার হোসেন চুননু ভাই সহ আমার ৫/৬ জন রামচন্দ্রপুর ইউনিয়ন পরিষদে যাই। সেখানে যাওয়ার পরে চেয়ারম্যান আমাকে সে ডাক দেয়। আমি তার ডাকের সাথে সাথে তার কাছে গেলে তার টেবিলের পাশে রাখা একটি লাঠি দিয়ে আমাকে বেধরক মারধর শুরু করে। তার মারধরের শিকার হয়ে আমার হাতের একটি আঙ্গুল ফেটে যায় ও এক পায়ের হাঁটুতে ফোলা যখম হয়। চেয়ারম্যানের মারপিট দেখে আমার বাবা ধরতে গেলে চেয়ারম্যান আমার সত্তর আর্ধ বৃদ্ধ বয়সি বাবাকে মারধর করবে বলে হুমকি দেয়।

এ বিষয় নির্যাতনের শিকার জুয়েলের বৃদ্ধ বাবার কাছে জানতে চাওয়া হলে তিনি জানান, আমি একজন হার্টের রোগী। আমার ছেলেকে চেয়ারম্যান পরিষদের একটি কক্ষে আমার সামনে মারধর শুরু করে। আমার ছেলেকে চেয়ারম্যান বেধরক মারধর করতে থাকে। আমি মারধর দেখে চেয়ারম্যানকে এভাবে মারতে বারন করে ছাড়াতে গেলে সে আমাকে গালি দিয়ে তোকেও মারবো বলে আমাকে ধাক্কা দিলে আমি নিচে পড়ে যাই। আমাদের ওয়ার্ডের মেম্বর চুন্নু
পরিষদ থেকে তার মাকে নিয়ে চলে গেলে, মাছুম শেরোয়ানি মেম্বরকে ধরার জন্য কাকে যেন ফোন দেয়।

অনুসন্ধানে জানাযায়, বহু অপকর্মের হোতা ঝালকাঠি সদর উপজেলাধীন গাভারামচন্দ্রপুর ইউপি চেয়ারম্যান মাছুম শেরোয়ানীর বিরুদ্ধে তার ইউনিয়নের ইউপি সদস্যদের রয়েছে নানান অভিযোগ। এ বিষয় রামচন্দ্রপুর ইউনিয়নে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একাধিক ইউপি সদস্য জানান, চেয়ারম্যান মাছুম শেরোয়ানীর বিরুদ্ধে ইউনিয়নে অনেক অনিয়ম ও দূর্নীতির অভিযোগ রয়েছে। আমরা কতিপয় ইউপি সদস্যরা মিলে চেয়ারম্যান মাছুম শেরোয়ানির বিরুদ্ধে দুদকে অভিযোগ করি।

এ বিষয় গাভারামচন্দ্রপুর ইউপি চেয়ারম্যান মাছুম শেরোয়ানীর কাছে জানতে চাওয়া হলে তিনি সাংবাদিকদের কোন তথ্য দিতে রাজি না বলে জানান।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *