উলিপুরের গুনাইগাছ পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষকের দুর্নীতি। আদালতে মামলা


কুড়িগ্রামের উলিপুরের ঐতিহ্যবাহী শিক্ষা প্রতিষ্ঠান গুনাইগাছ পাইলট উচ্চ বিদ্যালয় ব্যক্তি দ্বন্ধের কারণে মামলায় জর্জড়িত। একটি অসাধু চক্র প্রতিষ্ঠানটির সুনাম ক্ষুন্ন করে নিজের স্বার্থ আদায়ের চেষ্টায় সর্বশক্তি নিয়োগ করেছে বলে মনে করছেন এলাকার সচেতন মহল।

জানা গেছে, ঐতিহ্যবাহী এ প্রতিষ্ঠানে কয়েক বছর আগেও মামলা বলে কোন শব্দ ছিলো না। প্রধান শিক্ষক গোলাম হোসেন অবসরে যাওয়ার পর শুরু হয় শিক্ষকদের মাঝে আন্তকোন্দল। বর্তমানে ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক ফিরোজ ইমাম আমিন সর্বকনিষ্ঠ হলেও এ্যাডহক কমিটি তাকে ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষকের দায়িত্ব দেয়ায় প্রতিষ্ঠানটিতে চরম অব্যবস্থাপনা দেখা দিয়েছে। এমন কি আজীবন দাতা সদস্য সোলায়মান আলীকে কমিটির বাইরে রেখে নতুন করে দাতা সদস্য বানিয়ে নিজের স্বার্থ সিদ্ধি করার বহুমুখী কার্যক্রম করেন ফিরোজ ইমাম আমীন। সে প্রক্রিয়ার অংশ হিসেবে কাগজে কলমে ম্যানেজিং কমিটি করার চেষ্টা করলে সোলায়মান আলী ১৫ জানুয়ারী ২০২০তারিখে উপজেলা নির্বাহী অফিসারকে বিষয়টি অবগত করে ম্যানেজিং কমিটির জন্য প্রকাশ্য নির্বাচনের দাবি জানান। এর ফলে তিনি উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার আব্দুর রবকে উক্ত বিষয়টি তদন্তের পর আইনগত ব্যবস্থা নিতে বলেন।
উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার তদন্ত করা তো দূরে থাক উল্টো ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষককে সদস্য সচিব করে কাগজে কলমে ম্যানেজিং কমিটি অনুমোদনের যাবতীয় কার্যক্রমে সহযোগীতা করেন বলে অভিযোগ। ফলে ২৫ ফেব্র“য়ারী ২০২০ তারিখে অনুমোদিত ম্যানেজিং কমিটিকে অবৈধ দাবি করে উলিপুর সিনিয়র সহকারী জজ আদালতে একটি মামলা আনয়ন করেন সোলায়মান আলী। য়ার নং ৬৬/২০।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *