প্রেমের টানে ঘর বাঁধার স্বপ্ন নিয়ে বাংলাদেশে আসা ভারতীয় নারী জেলহাজতে

স্টাফ রিপোর্টারঃ
ঘর বাঁধার স্বপ্ন নিয়ে সন্তানসহ কুড়িগ্রামের ফুলবাড়ীতে আসা ভারতীয় নারী জেলহাজতে। শনিবার সকালে ফুলবাড়ী থানার পুলিশ তিন বছর বয়সী ছেলে সন্তান সহ ওই নারীকে জেলহাজতে প্রেরণ করেছে। ভারতীয় ওই নারীর নাম শ্রীমতি সুনিয়া সাঁউ (৩০)। সে ভারতের ব্লাশপুর ছত্রিশগড় রাজ্যের মঙ্গলী জেলার জড়াগাঁও থানার মৃত ফাগুরাম সাঁউ ও রাজকুমারী দম্পতির মেয়ে।

জানাযায়, গত ২৫ জুলাই দুই দেশের দালালের মাধ্যমে বাংলাদেশের কুড়িগ্রামের ভুরুঙ্গামারী সীমান্ত পেরিয়ে ফুলবাড়ী উপজেলার সীমান্তঘেষা কাশিপুর ইউনিয়নের অনন্তপুর চানদালার পাড় গ্রামের মৃত আবুল কাসেমের ছেলে ওবাইদুল হক (৩৬) এর বাড়ীতে আসে।স্থানীয়দের চোখের আড়ালে গত এক মাস ধরে ওবাইদুল হকের সাথে ঘর-সংসার করছেন ওই নারী।

স্থানীয় আফজাল হোসেন, মতিয়ার রহমান , আব্দুল সাক্তার ও সিরাজুল ইসলাম জানান, ওবাইদুল হক ভারতে গিয়ে রাজমিস্ত্রীর কাজ করার সুবাধে ওই নারীর সঙ্গে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠে। পরে ভারতের দিল্লী শহরে চার বছর আগে ওই নারীকে বিয়ে করে ওবাইদুল হক। তাদের ঘরে একটি তিন বছরের ছেলে সন্তানও রয়েছে। তারা আরও জানান ভারতীয় ওই নারী ওবাইদুল হকের বাড়ীতে আসায় তার প্রথম স্ত্রী কল্পনা বেগম স্বামীর দ্বিতীয় স্ত্রী শ্রীমতি সুনিয়া সাঁউকে মেনে নিয়ে ঘরে তুলে নেন।

কিন্তু গত কয়েকদিন ধরে প্রথম স্ত্রী কল্পনা বেগমের সাথে স্বামী ওবাইদুল হকের ঝগড়াঝাটি হওয়ায় ভারতীয় নারী আসার বিষয়টি এলাকায় ছড়িয়ে পড়ে। পরে লালমনিরহাট ১৫ বিজিবির অধীনস্থ অনন্তপুর ক্যাম্পের বিজিবি সদস্যরা খবর পেয় শুক্রবার বিকালে ওবাইদুল হকের বাড়ী থেকে ওই নারীকে আটক করে ক্যাম্পে নিয়ে যায়। রাতেই অবৈধ অনুপ্রবেশের দায়ে মামলা দায়ের করে পুলিশে সোপর্দ করে ওই নারীকে।

এ ব্যাপারে ফুলবাড়ী থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) রাজীব কুমার রায় ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, থানায় একটি অবৈধ অনুপ্রবেশের অপরাধে ওই নারীর বিরুদ্ধে বিজিবি বাদী হয়ে মামলা দায়ের করেছে এবং শনিবার সকালে ভারতীয় নারীকে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *