সাব-রেজিষ্ট্রার বিহীন ভূরুঙ্গামারী উপজেলা চরম ভোগান্তিতে জনগন

রবিউল আলম লিটন,ভূরুঙ্গামারী (কুড়িগ্রাম) প্রতিনিধিঃ
ভূরুঙ্গামারী উপজেলার সাব-রেজিষ্ট্রার অফিস অনিয়মিত হওয়ার কারণে একমাস যাবৎ ভোগান্তিতে জমি ক্রেতা-বিক্রেতারা

খোজ নিয়ে জানা যায় সপ্তাহে রবি ও সোমবার রেজিষ্ট্রি কার্যক্রম চলার কথা থাকলেও তা ব্যহত হচ্ছে নানা কারণে।
নিয়মিত সাব-রেজিষ্ট্রার নাবিব আফতাব ২১ জানুয়ারী /২০ থেকে ছুটিতে থাকায় এই সংকট সৃষ্টি হয়।
নাগেশ্বরী উপজেলার সাব-রেজিষ্ট্রারকে অতিরিক্ত দায়িত্ব প্রদান করা হলে তিনি মাত্র একদিন অফিস করেণ।
গত রবিবার নাগেশ্বরী উপজেলার সাব-রেজিষ্ট্রার প্রফুল্ল কুমার দায়িত্ব পালন করতে আসলেও অদৃশ্য কারণে অফিস না করেই ফিরে যান, ফলে উপজেলার দশটি ইউনিয়ন থেকে আগত ক্রেতা-বিক্রেতারা জমি রেজিষ্ট্রি করতে এসে সাব-রেজিষ্ট্রার না থাকায় চরম ভোগান্তির শিকার হন।
এমনি একজন জমি বিক্রেতা জয়নাল আবেদীন ক্ষোভের সঙ্গে বলেন এই জমি বিক্রির টাকায় তিনি তার ছেলেকে বিদেশে পাঠাবেন। তার বিমানের টিকিট সহ আনুসাঙ্গিক যাবতীয় খরচ নির্ভর করছে এই জমি বিক্রির টাকার উপর। একজন ৯০ বছর বয়সী আলেয়া বেওয়া বলেন “এলা কি করং বাহে, জমিতো বেচি হইল ন্যা, চিকিস্সা করং কি দিয়া”।
অফিস না করার বিষয়ে অতিরিক্ত দায়িত্বে থাকা সাব-রেজিষ্ট্রার প্রফুল্ল কুমার বলেন কিছু ঝামেলার কারণে আমার পক্ষে এই দায়িত্ব পালন করা সম্ভব নয় বিধায় উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষকে
দরখাস্তের মাধ্যমে আমি অতিরিক্ত দায়িত্ব থেকে অব্যাহতি নিয়েছি।
ঝামেলার বিষয়ে জানতে চাইলে নাম প্রকাশ না করার শর্তে একজন অফিস সংশ্লিষ্ট কর্মচারি জানান চাঁদা না পেয়ে একজন জনপ্রতিনিধি সাব-রেজিষ্ট্রারকে হুমকি দেওয়ায় তিনি অতিরিক্ত দায়িত্ব থেকে অব্যাহতি নেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *