ভুরুঙ্গামারীতে বিরল দৃষ্টান্ত স্থাপন করল সনাতন স্বেবক সংঘের সদস্যরা

মনজুরুল ইসলাম
দেশ যখন মহামারী করোনা ভাইরাসের কারনে লকডাউন। চারিদিকে জনসাধারনের যাতায়াতে বিভিন্ন বিধি নিষেধ। আর বিধি নিষেধের মধ্যে ভুরুঙ্গামারীতেও কর্মহীন হয়ে পড়েছে হাজার হাজার শ্রমজীবি মানুষ। সরকারী সাহায্য সহযোগীতা প্রদান অব্যাহত থাকলেও তা প্রয়োজনের তুলনায় অপ্রতুল। এমনও অনেক শ্রমজীবি মানুষ রয়েছে যারা এখনও কোন প্রকার জরুরী ত্রান সহায়তা এখনও পায়নি। পরিবার পরিজন নিয়ে অনেকে মানবেতর জীবন যাপন করছে। এদিকে ২০১৯ সালে ভুরুঙ্গামারী উপজেলার সদর ইউনিয়নের আঙ্গারিয়া বড় বারাইটারী গ্রামের প্রায় অর্ধশতাধিক যুবকরা সেবার ব্রত নিয়ে প্রতিষ্ঠিত করেছে ‘‘সনাতন স্বেবক সংঘ’’নামের একটি সামাজিক প্রতিষ্ঠান। বর্তমান সময়ে করোনা ভাইরাসের কারনে কর্মহীন শ্রমজীবি মানুষের দুঃখ দুর্দশা দেখে তাদের অন্তরে জাগে হত দরিদ্র মানুষের সেবায় নিজেদের আত্মনিয়োগ করার। সকল সদস্য মিলে সিদ্ধান্ত নেয় এলাকার হতদরিদ্র মানুষের সেবায় এগিয়ে আসা। এদিকে সদস্যদের কারো নেই অন্যকে সাহায্য করার মত পর্যাপ্ত অর্থ। অবশেষে সকলে সিদ্ধান্ত নেয় বর্তমান সময়ে কৃষকেরা তো ধান কাটার জন্য পাচ্ছেনা কৃষি শ্রমিক। অবশেষে তারা সকলেই বিভিন্ন এলাকার কৃষকদের স্বল্প মজুরীতে ধান কেটে দিয়ে জোগাড় করে প্রায় ১৫/২০ হাজার টাকা। সেই টাকা দিয়ে দিয়ে কেনা হয়,চাউল,ডাল,আলু,লবণ,সাবান কিনে ৮ মে আঙ্গারিয়া বড় বারাইটারী সার্বজনীন দেবোত্তর চতুর্ভুজ মন্দির প্রাঙ্গনে ধর্মীয় ভেদাভেদ ভুলে হিন্দু-মুলিম ৫১ টি পরিবারের মাঝে প্রত্যেককে ৩ কেজি চাউল,২ কেজি আলু,আধা কেজি ডাল,আধা কেজি লবণ ও ১ টি হাত ধোয়ার সাবান প্রদান করে। ভারতে যখন হিন্দু মুসলিম দাঙ্গায় শত শত লোকজন নিহত,সাম্প্রদায়িক দাঙ্গায় যখন ভারতে চলছে হিন্দু মুসলিম বৈশম্য ঠিক তখনই বাংলাদেশের কুড়িগ্রাম জেলার ভুরুঙ্গামারী উপজেলার সদর ইউনিয়নের আঙ্গারিয়া (বড় বারাইটারী) গ্রামের সনাতন স্বেবক সংঘ নিজেদের শ্রমের টাকা দিয়ে উক্ত সামগ্রী উপহার দিয়ে বিরল দৃষ্টান্ত স্থাপন করে। তাদের এই মহৎ কাজে স্থানীয় বয়োবৃদ্ধরাও সহযোগীতা দিতে না পারলেও তাদের এ কাজে উৎসাহ দিতে কৃপনতা করতে ভুলেনি। সংগঠনটির আহবায়ক শ্রী সুশান্ত কুমার জানান,মানুষ মানুষের জন্য,সৃষ্টির সকল মানুষই একই স্রষ্টার সৃষ্টি। মানুষে মানুষে দ্বন্দে যেখানে ধর্মকে ব্যবহার করা হয় সেখানে স্রষ্টার কোন আশির্বাদ পতিত হয় না। আমরা মানুষ মানুষের সেবায় নিজেদের আত্ম নিয়োগ করবো এটাই আমাদের সংগঠনের মুল মহামন্ত্র। এই মহামন্ত্রকে সামনে রেখেই আমরা সংগঠনের সকল সদস্য এই মহৎ কাজে নেমেছি। আজকে ৫১টি পরিবারকে ত্রান সহায়তা উপহার দিতে পেয়ে আমরা সকলে গর্বিত। করোনা ভাইরাসের কারনে কর্মহীন হয়ে পড়া মানুষের জন্য আমাদের সাহায্য সহযোগীতা অব্যাহত রাখবো। এ সময় আরো উপস্থিত ছিলেন ভুরুঙ্গামারী উপজেলা যুবলীগ নেতা আলহাজ মঈন উদ্দিন খোকন। সংগঠনের শ্রী আনন্দ চক্রবর্তী,লক্ষন দাস,শীবেন দাস,সন্তোষ কুমার রায়,সুকুমার রায়,মদন কুমার দত্ত,নিরঞ্জন রায়সহ সকলেই উপস্থিত থেকে এই উপহার সামগ্রী প্রদান করেন। তারা সমাজের বিত্তবানদের এই দুর্যোগে সাহায্যের হাত বাড়ানোর আহবান জানান। অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন এশিয়ান বাংলা নিউজ ডট কম’র সম্পাদক ও প্রকাশক সাংবাদিক মনজুরুল ইসলাম।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *