সাপাহারে ছাগল চরানোতে বাধা দেওয়ায় রাতের অন্ধকারে বাগানের আমগাছ কর্তন

,সাপাহার (নওগাঁ) প্রতিনিধি: আমের রাজধানী খ্যাত নওগাঁর সাপাহারে রাতের অন্ধকারে আবারো বাগানে ছাগল চরানোতে বাধা দেওয়ায় এক আমচাষীর পাঁচবিঘা সম্পত্তির উপর রোপিত ৭৫০টি গাছের মধ্যে ৮০টি গাছ কর্তন করে প্রায় লক্ষাধিক টাকার ক্ষয়-ক্ষতি করেছে প্রতিপক্ষ দুর্বৃত্তরা। ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার গোয়ালা ল²ীতলা গ্রামের মাঠে।
অভিযোগ সুত্রে জানা গেছে, উপজেলার ল²ীতলা গ্রামে জনৈক বাবু শাহ এর ৫বিঘা জমি লিজ নেয় গোয়ালা গ্রামের সাদেক আলীর পুত্র সাইফুল ইসলাম। লিজ নেওয়া ওই জমিতে ৭৫০টি উন্নত জাতের আ¤্রপালী গাছের সমন্বয়ে আমবাগান তৈরী করেন সাইফুল। গত ১০ জানুয়ারী গোয়ালা ল²ীতলা এলাকার সাদিকুল ইসলামের স্ত্রী পিয়ারা খাতুন, আব্দুর রউফের ছেলে সাইফুল ইসলাম ,ও তার ছেলে সাদিকুল ইসলাম ওই আম বাগনে ছাগল চরাতে যায়। পরবর্তী সময়ে বাগান মালিক সাইফুল ইসলাম তাদেরকে ছাগল চরাতে বাধা প্রদান করলে তারা বাকবিতন্ডা শুরুর এক পর্যায়ে বাগান মালিককে বিভিন্ন হুমকী প্রদান করে। এমনকি গাছ কেটে ফেলার পর্যন্তও হুমকি দেয় যার ফলস্বরূপ গত ১৯ জানুয়ারী দিবাগত রাত ১টার দিকে তারা বাগানে উপস্থিত হয়ে গাছ কাটা শুরু করে এবং ৮০টি গাছ কেটে ফেলে। এসময় বাগানে মৃদু লাইটের আলো দেখতে পেয়ে এলাকার কয়েকজন ব্যক্তি বাগানে টর্চলাইট দিয়ে উজ্বল আলোতে উপরোক্ত তিন ব্যক্তিকে চিনতে পারে। সেসময় ঘটনা বে-গতিক দেখে গাছ কাটা ফেলে রেখে দুর্বৃত্তরা ঘটনাস্থল থেকে পালিয়ে যায়।
এ বিষয়ে বাগান মালিক সাইফুল ইসলাম জানান, উপরোক্ত তিনজন ব্যক্তি ছাগল চরানোকে কেন্দ্র করে আমার বাগানের ৮০টি গাছ কেটে প্রায় লক্ষাধিক টাকার ক্ষয়-ক্ষতি করেছে। এ ঘটনায় সাইফুল ইসলাম বাদী হয়ে থানায় একটি অভিযোগ দাখিল করেছে।
সাপাহারে পর পর এরকম গাছকাটার ন্যাক্কারজনক ঘটনায় এলাকায় আমচাষীদের মধ্যে আতঙ্ক বিরাজ করছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *