কুড়িগ্রামের রৌমারীতে পুলিশ কনস্টেবলের আত্মহত্যা

প্রতিনিধি, কুড়িগ্রাম :
কুড়িগ্রামের রৌমারীতে নিজ বাড়িতে গলায় ফাঁস দিয়ে আব্দুর রহিম নামে এক পুলিশ কনস্টেবল আত্মহত্যা করেছেন।
গতকাল সোমবার বিকেল সাড়ে ৫টার দিকে নিজ স্বয়ন কক্ষের পাশে গোলায় ঘরে ধরণার সাথে গলায় রশি পেঁচিয়ে আত্মহত্যা করেন তিনি। মৃতঃ আব্দুর রহিম উপজেলার বন্দবের ইউনিয়নের দক্ষিণ টাপুরচর গ্রামের মৃতঃ দেলোয়ার হোসেনের ছেলে। তিনি জামালপুর সদর থানার ২নং পুলিশ ফাঁড়িতে কর্মরত ছিলেন।
তিনি ২৮দিনের ছুটি নিয়ে গত ১৮মার্চ তার নিজ বাড়িতে আসেন।
নিহত পুলিশ কনস্টেবলের স্ত্রী সাবিনা ইয়াসমিন শিল্পী জানান, তার স্বামী মানসিকভাবে অবসাদগ্রস্ত ছিলেন। পরিবারের কাউকে না জানিয়ে তিনি ধানচাল রাখার ঘরের ভিতর আত্মহত্যা করেন। নিহত পুলিশ কনস্টেবল আব্দুর রহিমের সংসারে তিন কন্যা সন্তান রয়েছে। প্রায় ১৮বছর ধরে তিনি পুলিশে কর্মরত ছিলেন।
এ প্রসঙ্গে রৌমারী থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মুন্তাছের বিল্লাহ বলেন, ঘটনাস্থলে সাব ইন্সপেক্টর আনছার আলীসহ একটি টিমকে পাঠানো হয়েছে। তারা মরদেহ উদ্ধারের পর সুরৎহাল শেষে থানায় নিয়ে আসা হয়েছে। মরদেহ মঙ্গলবার ২৯মার্চ কুড়িগ্রামে ময়নাতদন্তের জন্য প্রেরণ করা হবে। পারিবারিক সূত্রে মানসিক অবসাদগ্রস্ত হয়ে আত্মহত্যা করেছেন বলে প্রাথমিকভাবে জানা গেছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.