ইশরাত জাহান চৌধুরী, মৌলভীবাজার ::
জাতীয় দৈনিক খবরপত্র ও দি এশিয়ান এজ পত্রিকার মৌলভীবাজার জেলা প্রতিনিধি, স্থানীয় সাপ্তাহিক সুরমার ঢেউ পত্রিকার বার্তা সম্পাদক এবং হিউম্যান রাইটস রিভিউ সোসাইটি মৌলভীবাজার জেলা শাখার সাধারন সম্পাদক সাংবাদিক শ. ই. সরকার জবলু’র মায়ের মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করে তাঁর শোকাহত পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা জানিয়েছেন- মৌলভীবাজার জেলা সাংবাদিক ফোরাম’র উপদেষ্টা, বিশিষ্ট সাংবাদিক ও লেখক সরওয়ার আহমদ, দৈনিক বাংলার দিন পত্রিকার সম্পাদক ও মৌলভীবাজার জেলা সাংবাদিক ফোরাম সভাপতি বকসি ইকবাল আহমদ, মাছরাঙ্গা টিভি’র জেলা প্রতিনিধি ও মৌলভীবাজার জেলা সাংবাদিক ফোরামের সাধারন সম্পাদক ফেরদৗস আহমদ, রেডটাইম বিডি ডটকম’র সম্পাদক সৌমিত্র দেব টিটু, সাপ্তাহিক মুক্তকতা সম্পাদক মামুনুর রশিদ মহসিন, বিডিনিউজ একাত্তর ডটনেট, সম্পাদক এম এ হাকিম রাজ, ফটোনিউজবিডি ডটকম’র সম্পাদক ও বাংলানিউজ২৪ ডটকম’র মৌলভীবাজার জেলা প্রতিনিধি এমদাদুল হক, সাংবাদিক সৈয়দ মোকাম্মেল আলী মুন্না, সাংবাদিক আব্দুল কাইযুম, সাংবাদিক আব্দুল বাছিত খাঁন, মিলেনিয়াম টিভি’র জেলা প্রতিনিধি সাংবাদিক মাহমুদ এইচ খাঁন, হিউম্যান রাইটস রিভিউ সোসাইটি’র কেন্দ্রীয় চেয়ারম্যান এড. সাইয়্যিদৃুল হক সাঈদ, মৌলভীবাজার জেলা শাখার সভাপতি ছালেহ আহমদ সেলিম, সাংগঠনিক সম্পাদক ও মৌলভীবাজার অনলাইন প্রেসক্লাব’র আহবায়ক সাংবাদিক মশাহিদ আহমদ, আইন ও সালিশ কেন্দ্র (আসক), মৌলভীবাজার জেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক এবং মৌলভীবাজার অনলাইন প্রেসক্লাব’র সদস্য সচিব সাংবাদিক মতিউর রহমান, মৌলভীবাজার অনলাইন প্রেসক্লাব’র যুগ্ন আহবায়ক বিশিষ্ট লেখক, গবেষক ও সাংবাদিক এহসান বিন মুজাহির, দুর্নীতি মুক্তকরণ বাংলাদেশ ফোরামের কেন্দ্রীয় সাধারন সম্পাদক মকছুদ হোসেন, মৌলভীবাজার জেলা শাখার সাবেক সভাপতি ইয়াওর খাঁন, বর্তমান সভাপতি মাহমুদুর রহমান, সাধারন সম্পাদক ও দৈনিক মুক্তখবর জেলা প্রতিনিধি জিতু তালুকদার, সাংগঠনিক সম্পাদক চিনু রঞ্জন তালুকদার, সিনিয়র সদস্য শেখ ফয়েজ আলী, হিউম্যান রাইটস রিভিউ সোসাইটি’র জেলা মহিলা বিষয়ক সম্পাদক রুবিনা আক্তার, মানবাধিকার কর্মী ফাতেমা বেগম পপি প্রমুখ। উল্লেখ্য- সাংবাদিক শ. ই. সরকার জবলু’র মাতা মিসেস দিলারা খাতুন (৮৫) বেশ কিছুদিন যাবৎ বার্ধক্যজনিত অসুস্থতায় ভুগছিলেন এবং গত ১৭ আগষ্ট সকাল সাড়ে ৮টায় মৌলভীবাজার শহরের বনবীথি এলাকাস্থ তিনির নিজ বাসভবনে ইন্তেকাল করেন। ওইদিনই বিকাল সাড়ে ৫টায় শহরের টিকরবাড়ী কবরস্থানে জানাজা শেষে তাকে দাফন করা হয়। মৃত্যুকালে তিনি ৪ পুত্র ৪ কন্যা, ৩ পুত্রবধু, ৩ জামাতা, নাতি-নাতনি ও স্বজনসহ অসংখ্য গুনগ্রাহী রেখে গেছেন।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।