ভুরুঙ্গামারী(কুড়িগ্রাম) প্রতিনিধিঃ
ভুরুঙ্গামারী সেটেলমেন্ট অফিসারের ঘুষের টাকা দিতে অস্বীকার করায় সাধারন কৃষককে আটকে রেখে জেলহাজতে প্রেরনের চেষ্টা। অবশেষে জনতার চাপে ছেড়ে দিতে বাধ্য ।
ঘটনায় প্রকাশ গত ১৬ মে/১৬ উপজেলার চরভুরুঙ্গামারী ইউনিয়নের মোঃ কফিল উদ্দিনের পুত্র ইউনুস আলী তার মৃত চাচা আব্দুল করিমের চরভুরুঙ্গামারী মৌজার ১৩৩১ নং কেসের আপত্তি শুনানীর সময় জমির রেকর্ডের কাগজ ও আবেদন দাখিল করার সময় সেটেলমেন্ট অফিসার অমল কুমার ঘোষ বেঞ্চ সহকারীর দায়িত্বে থাকা আমিনুর রহমানের মাধ্যমে ১০ হাজার টাকা ঘুষ দাবী করলে তা দিতে অস্বীকার করায় অফিসেই জমির আবেদন সহ কাগজপত্র ছিড়ে ফেলে দেয় এবং জানায় কাগজপত্র দেখার সময় নাই। ইউনুস আলী এর প্রতিবাদ করায় তাকে আটক করে পুলিশকে খবর দেয় এবং জেলহাজতে প্রেরণের চেষ্টা করলে উপস্থিত জনতা অফিস ঘেরাও করার চেষ্টা করলে পরে স্থানীয় গন্যমান্যরা বিষয়টি জানার পর তাকে ছেড়ে দেয়। পরে ১৯ মে/১৬ ইং ইউনুস আলী উক্ত সেটেলমেন্ট অফিসার অমল কুমার ঘোষের বিরুদ্ধে ভুরুঙ্গামারী উপজেলা চেয়ারম্যান,ভুরুঙ্গামারী প্রেস ক্লাব সহ বিভিন্ন অফিসে লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছে। ভুক্তভোগীরা জানান জমির যেকোন কাগজপত্রের জন্য সেটেলমেন্ট অফিসে দালাল এবং টাকা ছাড়া কোন কাজ হয় না। প্রতিনিয়ত সাধারন কৃষকদের হয়রানীর স্বীকার হলেও দেখার কেউ নেই। কেউ এর প্রতিবাদ করতে গেলে অফিসার এবং দালালদের হাতে লাঞ্চিত হতে হয়। অনতি বিলম্বে কৃষক লাঞ্চিতকারী সেটেলমেন্ট অফিসারের দৃষ্টান্তমুলক শাস্তি দাবী করেছে সুধীমহল।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।