রংপুরে সড়ক দূর্ঘটনায় স্ত্রী নিহতঃ স্বামী ও শিশু সন্তান গুরুতর আহত

তাজিদুল ইসলাম লাল, রংপুর প্রতিনিধি

রংপুরে মোটর সাইকেল থেকে স্লীপ করে পড়ে স্ত্রী হালিমা বেগম (৩০) ঘটনাস্থলে নিহত হয়েছেন। এসময় স্বামী ও কন্যা শিশু গুরুতর আহত হয়েছেন। পরে তাদের উদ্ধার করে রমেক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। দূর্ঘটনাটি আজ সোমবার রাত ৮টার সময় মিঠাপুকুর উপজেলার দমদমা বাজার সংলগ্ন ইসলামপুর এলাকায় ঘটে।
পুলিশ ও এলাকাবাসী জানায়, মিঠাপুকুরের পায়রাবন্দ বৈরাগীগঞ্জ উদ্দীপন এনজিওতে কর্মরত মিজান মিয়া মোটরসাইকেলযোগে স্ত্রী হালিমা বেগম ও ৪ বছরের শিশু কন্যা নাফিসাকে নিয়ে শ্বশুর বাড়ি থেকে দেউতি ভাড়া বাসা যাওয়ার পথে ঘটনাস্থলে মোটর সাইকেল স্লীপ করে পড়ে যায়। এসময় একই দীগ থেকে আসা রংপুরগামী একটি যাত্রীবাহী দ্রুতগামী বাস ছাপা দিলে ঘটনাস্থলে স্ত্রী মারা যায় এবং স্বামী ও শিশু সন্তান আহত হয়। গুরুতর আহত স্বামীকে রমেক হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে এবং কন্যা সন্তানটিকে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে পরিবারের কাছে দেয়ার জন্য তাদের ডাকা হয়েছে। তাদের বাড়ী বাড়ী রংপুরের পীরগাছা উপজেলার দেউতি ইউপির আরাজি চালুনিয়া গ্রামে। তার পিতার নাম একরাম উদ্দিন। নিহত স্ত্রী হালিমা বেগম রংপুর মেডিকেলে নার্স হিসেবে কর্মরত ছিলেন।
বড়দরগা হাইওয়ে থানার ওসি মোঃ শাহজাহান খান দূর্ঘনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, স্বামীকে রমেক হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে এবং স্ত্রীর লাশ ময়না তদন্তের জন্য একই হাসপাতালে পাঠানো হচ্ছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.